শিকলমুক্ত মিতু, ফিরবে স্বাভাবিক জীবনে

শ্রীপুর (গাজীপুর) প্রতিনিধি :
গাজীপুরের শ্রীপুর উপজেলার নিজমাওনা গ্রামের ৮বছর বয়সী শিশু মিতুর পরিবারের লোকজনকে বুঝিয়ে তার পায়ের শিকল খুলে দেয়া হয়েছে। এছাড়াও স্বাভাবিক জীবনে ফিরিয়ে আনার জন্য চিকিৎসার ব্যবস্থা করা হচ্ছে বলে জানিয়েছেন শ্রীপুর উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) ফাতেমাতুজজোহরা।
সোমবার বিকেলে গাজীপুর জেলা প্রশাসকের নির্দেশে শিশু মিতুর বাড়িতে উপস্থিত হয়ে এ আশ্বাস দেয়া হয়। এসময় উপস্থিত ছিলেন শ্রীপুর উপজেলা সমাজসেবা কর্মকর্তা মঞ্জুরুল ইসলাম, স্থানীয় সেচ্ছাসেবী বৃদ্ধা বন্ধু ফাউন্ডেশনের উপদেষ্টা মহিদুল আলম।
শ্রীপুর উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) ফাতেমাতুজজোহরা জানান, সম্প্রতি সংবাদ মাধ্যমে ৮বছর বয়সী শিশু মিতুর জীবন সম্পর্কে মানবেতর তথ্য পাওয়া যায়। এরই প্রেক্ষিতে জেলা প্রশাসকের নির্দেশে মিতুর বাড়িতে গিয়ে তার অবস্থা সরেজমিন পরিদর্শন করা হয়। এসময় শিশু মিতুর জন্য একটি সরকারী সহায়তা কার্ড দেয়া হয়। এছাড়াও তাকে মঙ্গলবার সকালে শ্রীপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিৎসা দেয়া হয়। এছাড়াও তার পরিবারের লোকজনদের শিশুটির বিষয়ে বুঝালে তার বাবা ও দাদা শিশুটির দায়িত্বভার গ্রহন করেন।
উল্লেখ্য গাজীপুরের শ্রীপুর উপজেলার নিজমাওনা এলাকার শিশু মিতুর মা মারা যাওয়ার পর তার দায়িত্ব নেয়নি কোন আপনজন। তবে তার বাবার দাদী তার দেখাশোনা করছিল। জন্মের ছয়মাস বয়স থেকেই শিশুটিকে খুঁটিতে বেধে রাখা হয়েছিল। মিতুর বয়স এখন ৮বছর। মিতুকে নিয়ে গত ৩জুন অবজারভার অনলাইন ও ৪জুন প্রিন্ট ভার্ষনে সংবাদ প্রকাশ হয়েছিল।