ভারতে নতুন পাঁচ রাজ্যপাল নিয়োগ, আছেন মুসলিমও

প্রাইম আন্তর্জাতিক :
ভারতের পাঁচ রাজ্যে নতুন রাজ্যপালের নাম ঘোষণা করেছেন দেশটির রাষ্ট্রপতি রামনাথ কোবিন্দ। যার মধ্যে একজন মুসলমানও রয়েছেন। হিন্দুত্ববাদী নীতির কারণে সমালোচিত বিজেপি সরকার রবিবার এই নিয়োগ চূড়ান্ত করেছে। ধর্মীয় ক্ষেত্রে উদারনীতির পরিচয়ের জন্যই এই নিয়োগ দেয়া হতে পারে বলে ধারণা করা হচ্ছে। খবর এনডিটিভির।

নিয়োগ পাওয়া পাঁচ রাজ্যপাল হলেন তামিলনাড়ুর বিজেপি সভানেত্রী ড. তামিলিশি সৌন্দররাজন এবং প্রাক্তন কেন্দ্রীয় মন্ত্রী বন্দারু দত্তাত্রেয়। তামিলিশি সৌন্দররাজনকে তেলেঙ্গানার রাজ্যপাল করা হয়েছে। নয়া এই রাজ্যে প্রথমবার আলাদা রাজ্যপাল নিয়োগ করা হল। এছাড়া কলরাজ মিশ্রকে সরিয়ে হিমাচল প্রদেশে বন্দারু দত্তাত্রেয়কে, কেরালায় আরিফ মোহাম্মদ খানকে এবং মহারাষ্ট্রের রাজ্যে ভগৎ সিং কোশিয়ারিকে রাজ্যপাল হিসেবে নিয়োগ দেয়া হয়। আর হিমাচলের রাজ্যপাল কলরাজ মিশ্রকে রাজস্থানের রাজ্যপাল কল্যাণ সিংহের জায়গায় দেয়া হয়েছে।

রাজ্যপাল নিয়োগ করা পাঁচ রাজ্যের মধ্যে, চলতি বছরেই মহারাষ্ট্রে বিধানসভা নির্বাচন রয়েছে।

অন্ধ্রপ্রদেশ বিভাজনের আগে থেকেই তেলেঙ্গানার রাজ্যপাল ইএসএল নরসিমান। পরে তেলেঙ্গানা হওয়ার পর দুই রাজ্যেরই দায়িত্বে ছিলেন তিনি। সম্প্রতি পদত্যাগ করেন ইএসএল নরসিমান।

চলতি বছরেই মহারাষ্ট্রে বিধানসভা নির্বাচন। বিদ্যাসাগরের রাওয়র জায়গায় রাজ্যপাল পদে এলেন ভগৎ সিং কোশিয়ারি। পাঁচ বছরের মেয়াদ প্রায় শেষের দিকে ছিল তার।

আগে কংগ্রেসে ছিলেন বর্ষীয়ান রাজনীতিক আরিফ মোহাম্মদ খান একাধিক দলে কাজ করেছেন। তার মধ্যে রয়েছে মায়াবতীর বহুজন সমাজবার্টি পার্টিও, পরে বিজেপিতে যোগদান করেন আরিফ মোহাম্মদ খান। তাছাড়া ইসলামের ধর্মীয় সংস্কারের জন্যও কাজ করা এই রাজনীতিবিদ বিভিন্ন থিংট্যাঙ্কের সঙ্গেও আছেন। ভারতে সম্প্রতি বাতিল হওয়া তিন তালাক প্রথার কঠোর সমালোচকও ছিলেন আরিফ মোহাম্মদ খান। প্রাক্তন প্রধান বিচারপতি পি সদাশিবমের মেয়াদ প্রায় শেষ হতে যাওয়ায় তার জায়গায় এলেন তিনি।