কোনো সন্দেহ নেই, কাশ্মীর দ্রুতই স্বাধীন হবে: ইমরান খান

প্রাইম আন্তর্জাতিক  :

কাশ্মীর নিয়ে পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান বেশ সরব। সম্প্রতি শেষ হওয়া জাতিসংঘের সাধারণ পরিষদের অধিবেশনেও তিনি কাশ্মীর ইস্যুতে বক্তব্য রেখেছেন। এবার পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী জানালেন কাশ্মীর খুব দ্রুতই স্বাধীন হবে।

শনিবার দুপুরে নিজের ভেরিফাইড ফেসবুক পেইজে ইমরান খান লিখেছেন, ‘No doubt, Kashmir’s freedom is on the way and coming soon. In sha ALLAH.’ (কোনো সন্দেহ নেই, কাশ্মীরে স্বাধীনতা আসছে এবং শিগগিরই আসছে। ইনশাআল্লাহ।)

জাতিসংঘের ৭৪তম সাধারণ অধিবেশনে ইমরান খান বলেছিলেন, ‘কাশ্মীরকে বিশেষ মর্যাদা দেওয়া সংবিধানের ৩৭০ নং আর্টিকেল ভারত বাতিল করল। কাশ্মীরে প্রচুর সেনা সমাবেশ করল। এখন কাশ্মীরে মোট সেনার পরিমাণ ৯ লাখের বেশি। এর মাধ্যমে ৮ মিলিয়ন লোকের উপর কারফিউ জারি করা হলো।

তিনি আরো বলেন, ‘নরেন্দ্র মোদি আরএসএস এর আজীবন সদস্য। আরএসএস এমন একটি সংগঠন যেটি এডলফ হিটলার এবং মুসোলিনীর হিংস্র আদর্শে অনুপ্রাণিত। নাৎসিরা যে পদ্ধতিতে অন্য সকল জাতি হতে নিজেদের সেরা ভাবতো একইভাবে আরএসএসও নিজেদের সবার চেয়ে সেরা মনে করে। আর সেই আরএসএস ভারত থেকে মুসলমানদের জাতিগত নিধনে বিশ্বাসী। গুগল করে আপনি জানতে পারবেন আরএসএস এর প্রতিষ্ঠাতা গোলকওয়ার। এই ঘৃণার আদর্শ ১৯৪৮ সালে হত্যা করেছে ভারতের অবিসংবাদিত নেতা মহাত্মা গান্ধীকে।’

উল্লেখ্য, ভারত নিয়ন্ত্রিত জম্মু-কাশ্মীরের বিশেষ মর্যাদা বাতিল করে ভারতের সংবিধান থেকে ৩৭০ ধারা বিলুপ্ত করে মোদি সরকার। এ সময় কাশ্মীরে জরুরি অবস্থা জারি করা হয় এবং সব ধরনের টেলিফোন ও ইন্টারনেট সেবা বন্ধ করে দেওয়া হয়। তবে আস্তে আস্তে কাশ্মীরের জরুরি অবস্থা উঠিয়ে নেওয়া হয়। আর টেলিফোন সেবা আগামী সোমবার চালু হবে বলে জানায় কাশ্মীরের প্রিন্সিপ্যাল সেক্রেটারি রোহিত কনসাল। কিন্তু জম্মু-কাশ্মীরের সব জেলায় এই সেবা এখনই চালু হচ্ছে না।