শুক্রবার, জানুয়ারি ২২
Shadow

জয়াসুরিয়ার রেকর্ডটা ভাঙলেন তামিম

প্রাইম খেলাধুলা  :

দু’টি মাইলফলকে চোখ রেখে জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে মাঠে নেমেছিলেন তামিম ইকবাল। একে একে দু’টি মাইলফল পেরিয়ে গেছেন তিনি। ওয়ানডেতে এক মাঠে সর্বোচ্চ রানের রেকর্ড এখন বাঁহাতি এই ওপেনারের। তামিম কেড়ে নিয়েছেন আরেক বাঁহাতি ওপেনার সনাথ জয়াসুরিয়ার রেকর্ড। ১৯৯২ থেকে ২০০৯ সাল পর্যন্ত কলম্বোর আর প্রেমাদাসা স্টেডিয়ামে ৭১ ম্যাচ খেলেন শ্রীলঙ্কার এই বিস্ফোরক ব্যাটসম্যান। ৭০ ইনিংসে ৩৮.৬৭ গড়ে করেন ২ হাজার ৫১৪ রান।

রেকর্ড গড়তে জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে ৪২ রান প্রয়োজন ছিল তামিমের। মিরপুর শের-ই-বাংলা জাতীয় ক্রিকেট স্টেডিয়ামে ২৪তম ওভারে ওই রান ছুঁয়ে ফেলেন তিনি। জয়াসুরিয়াকে ছাড়িয়ে যেতে তামিমের লেগেছে ৭৩ ইনিংস।

অন্যদিক প্রথম বাংলাদেশি হিসাবে ওয়ানডে ক্রিকেটে ছয় হাজার রানের ক্লাবে প্রবেশ করলেন তিনি। ওয়ানডেতে ছয় হাজার রান পূর্ণ করতে তামিমের আজ প্রয়োজন ছিল ৬৬ রান। কিন্তু এই প্রতিবেদন লেখা পর্যন্ত ৭৫ রান করে অপরাজিত আছেন তিনি। চলতি ত্রিদেশীয় সিরিজের প্রথম দু’ম্যাচে জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে অপরাজিত ৮৪ ও শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে ৮৪ রানের দু’টি ইনিংস খেলেছেন ফর্মের তুঙ্গে থাকা তামিম।

ওয়ানডেতে নির্দিষ্ট মাঠে সর্বোচ্চ রানের রেকর্ডটা এত দিন ছিল জয়াসুরিয়ার। কলম্বোর প্রেমাদাসায় ৭১ ম্যাচে ৪ সেঞ্চুরি ও ১৯ ফিফটিতে শ্রীলঙ্কান ওপেনারের রান ২ হাজার ৫১৪। শারজায় ৫৯ ম্যাচে ৪ সেঞ্চুরি ও ১৭ ফিফটিতে ২৪৬৪ রান করে দুইয়ে ছিলেন ইনজামাম-উল-হক। দুজনের রেকর্ড ভেঙে দেওয়ার ‘হুমকি’ দিয়ে ত্রিদেশীয় সিরিজ শুরু করেছিলেন তামিম। ওয়ানডেতে এক মাঠে সবচেয়ে বেশি রান করার রেকর্ড গড়তে বাংলাদেশের বাঁহাতি ওপেনার পিছিয়ে ছিলেন ২১০ রানের দূরত্বে।

নিজেদের প্রথম দুই ম্যাচে ১৬৮ রান করা তামিম আগেই টপকেছিলেন ইনজামামকে। রেকর্ডটা ভাঙতে আজ দরকার ছিল ৪৩ রান। অপেক্ষায় রাখেননি, ভেঙে দিয়েছেন জয়াসুরিয়ার ওয়ানডেতে এক মাঠে সর্বোচ্চ রান করার রেকর্ড। মিরপুর শেরেবাংলা স্টেডিয়াম তার প্রিয় মাঠ। অনেকবারই বলেছেন, ক্যারিয়ারের বেশির ভাগ ম্যাচ খেলেছেন এ মাঠে, এ মাঠেই খেলতে তিনি বেশি স্বচ্ছন্দ বোধ করেন। যে মাঠের সঙ্গে তার আত্মার বন্ধন, সেখানে এমন কীর্তি তো হবেই!

জয়াসুরিয়া-ইনজামাম ক্রিকেটকে বিদায় জানিয়েছেন কবেই। তামিমকে চ্যালেঞ্জ জানানোর সুযোগ তাদের নেই। তবুও তামিম স্বস্তি পাচ্ছেন কোথায়! তারই সতীর্থ-বন্ধু সাকিব আল হাসান এই রেকর্ডের শক্ত প্রতিদ্বন্দ্বী! মিরপুরেই ৭৬ ওয়ানডেতে ৪০.০৩ গড়ে ২ সেঞ্চুরি, ১৮ ফিফটিতে বাঁহাতি অলরাউন্ডারের রান ২ হাজার ৩৬৯।