Month: নভেম্বর ২০১৯

দেশের উন্নয়নে সবাই কর দিন : এনবিআর চেয়ারম্যান

দেশের উন্নয়নে সবাই কর দিন : এনবিআর চেয়ারম্যান

নিজস্ব প্রতিবেদক : রূপালী পর্দার এক ঝাঁক তারকার প্রায় সবাই তাদের বক্তব্যে বললেন, দেশের উন্নয়নে আসুন সবাই আয়কর দেই। কর দেয়ার অর্থই হলো দেশকে ভালবাসা। এনবিআর চেয়ারম্যান জানালেন, দেশের ১ শতাংশ মানুষ মাত্র কর দেন। কিন্তু স্থিতিশীল উন্নয়ন ও দেশকে এগিয়ে নিতে হলে সবার কর দেয়া উচিত। শনিবার সকালে সেগুনবাগিচায় জাতীয় রাজস্ব বোর্ড (এনবিআর) প্রাঙ্গণ থেকে আয়কর দিবসের বর্ণাঢ্য র‌্যালী বের করা হয়। সবাই মিলে দেব কর, দেশ হবে স্বনির্ভর-স্লোগানকে সামনে রেখে এবছর দিবসটির নির্ধারিত প্রতিপাদ্য হলো ‘কর প্রদানে স্বতঃস্ফূর্ত অংশগ্রহণ, নিশ্চিত হোক রূপকল্প বাস্তবায়ন’। আয়কর দিবসের র‌্যালীতে অংশগ্রহণের আগে চেয়ারম্যান মো. মোশাররফ হোসেন ভূঁইয়াসহ রূপালী পর্দার এক ঝাঁক তারকা বক্তব্য রাখেন। চিত্রনায়ক রিয়াজ, ওমর সানি, চিত্র নায়িকা মৌসুমী, পপি, সঙ্গীত শিল্পী কুমার বিশ্বজিৎ, অভিনেতা ড. ইমামুল হক, চঞ্চল চৌধুরী, নাট্যকার ব
ঢাকা উত্তর আওয়ামী লীগের সভাপতি বজলুর রহমান, দক্ষিণের মান্নাফী

ঢাকা উত্তর আওয়ামী লীগের সভাপতি বজলুর রহমান, দক্ষিণের মান্নাফী

নিজস্ব প্রতিবেদক : ঢাকা মহানগর উত্তর-দক্ষিণ আওয়ামী লীগের নতুন নেতৃত্ব ঘোষণা করা হয়েছে। ঢাকা মহানগর উত্তর আওয়ামী লীগের সভাপতি নির্বাচিত হয়েছেন বজলুর রহমান। সাধারণ সম্পাদক হয়েছেন এসএম মান্নান কচি। দক্ষিণে সভাপতি হয়েছেন আবু আহমেদ মান্নাফী, সাধারণ সম্পাদক নির্বাচিত হয়েছেন মো. হুমায়ুন কবির। শনিবার বিকালে ইঞ্জিনিয়ার্স ইনস্টিটিউশন মিলনায়তনে মহানগর আওয়ামী লীগের কাউন্সিল অধিবেশনে তাদের নাম ঘোষণা করেন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের এমপি। নতুন নেতাদের মধ্যে বজলুর রহমান সদ্যবিদায়ী কমিটির সহ-সভাপতি ছিলেন। এসএম মান্নান কচি যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক ছিলেন। অন্যদিকে আবু আহমেদ মান্নাফী দক্ষিণের সদ্যবিদায়ী কমিটির সহ-সভাপতির দায়িত্ব পালন করেন। হুমায়ুন কবির ছিলেন দক্ষিণের কার্যনির্বাহী কমিটির সদস্য। আওয়ামী লীগের গুরুত্বপূর্ণ এই দুই শাখায় ২২ জন সভাপতি ও ২২ জন সেক্
শিক্ষকরা লবিংয়ে ব্যস্ত : রাষ্ট্রপতি

শিক্ষকরা লবিংয়ে ব্যস্ত : রাষ্ট্রপতি

নিজস্ব প্রতিবেদক : রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের (রাবি) ১১তম সমাবর্তনে রাষ্ট্রপতি ও বিশ্ববিদ্যালয়ের চ্যান্সেলর মো. আবদুল হামিদ বলেন, বর্তমানে শিক্ষকরা প্রশাসনের বিভিন্ন পদপদবি পাওয়ার লোভে বিশ্ববিদ্যালয়ের কার্যক্রমে ঠিকমতো অংশ নিচ্ছেন না। বরং তারা বিভিন্ন লবিংয়ে ব্যস্ত। অনেকে আবার নিজের স্বার্থের জন্য শিক্ষার্থীদের ব্যবহার করতেও পিছপা হন না। ছাত্র-শিক্ষক সম্পর্ক ভুলে গিয়ে পারস্পরিক স্বার্থসংশ্লিষ্ট লেনদেনে সম্পৃক্ত হন। এটি অত্যন্ত অসম্মান ও অমর্যাদাকর। আপনারা ব্যক্তিগত চাওয়া ও পাওয়ার জন্য নীতি এবং আদর্শের সঙ্গে আপস করবেন না। শনিবার বিকেলে বিশ্ববিদ্যালয়ের শেখ কামাল স্টেডিয়ামে এসব কথা বলেন তিনি। সমাবর্তনে গ্র্যাজুয়েটদের উদ্দেশ্যে রাষ্ট্রপতি বলেন, তোমরা দেশের উচ্চতর মানবসম্পদ। তোমাদের ওপর দেশের ভবিষৎ ও অগ্রগতি নির্ভর করছে। কখনও অর্জিত ডিগ্রির মর্যাদা, ব্যক্তিগত সম্মানবোধ আর নৈতিকতাকে ভুলণ্ঠিত
শ্রীপুরে নবীন বরণ অনুষ্ঠিত 

শ্রীপুরে নবীন বরণ অনুষ্ঠিত 

শ্রীপুর প্রতিনিধি : গাজীপুর জেলার শ্রীপুর পৌর এলাকার বেড়াইদেরচালা গ্রামে অধ্যাপক রফিকুল ইসলাম একাডেমী এন্ড কলেজের নবীনবরণ ও সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান অনুষ্ঠিত হয়েছে। শনিবার বিদ্যালয় প্রাঙ্গণে দিনব্যাপী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন স্থানীয় সংসদ ইকবাল হোসেন সবুজ। অনুষ্ঠানে কলেজের দ্বিতীয় বর্ষের শিক্ষার্থীরা ফুল দিয়ে প্রথম বর্ষের নবীন শিক্ষার্থীদের বরণ করে নেয়। অধ্যাপক রফিকুল ইসলামের সভাপতিত্বে স্থানীয় কাউন্সিলর হাবিবুল্লাহর পরিচালনায় বক্তব্য রাখেন, পরিবেশ ও জলবায়ু পরিবর্তন মন্ত্রণালয়ের অতিরিক্ত সচিব মাহমুদুল হাসান মুকুল, শ্রীপুর পৌরসভার মেয়র আনিছুর রহমান, উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান এড. শামসুল আলম প্রধান, ভাইস চেয়ারম্যান মাহতাব উদ্দিন, জেলা পরিষদ সদস্য আবুল খায়ের বিএসসি, ছাত্রলীগ নেতা ফাহিম খন্দকার প্রমুখ। আলোচনা সভা শেষে এক মনোজ্ঞ সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান অনুষ্ঠিত হয়।
আইনের বাস্তবায়ন আটকে রাখা যাবে না : ইলিয়াস কাঞ্চন

আইনের বাস্তবায়ন আটকে রাখা যাবে না : ইলিয়াস কাঞ্চন

নিজস্ব প্রতিবেদক : নিরাপদ সড়ক চাই (নিসচা) আন্দোলনের চেয়ারম্যান চিত্রনায়ক ইলিয়াস কাঞ্চন বলেন, আইন প্রয়োগ করে সড়কে চলমান সংকট উত্তরণে নতুন সড়ক পরিবহন আইনের যথাযথ বাস্তবায়নের বিকল্প নেই। পরিবহন সেক্টরে শৃঙ্খলা জোরদার ও দুর্ঘটনা নিয়ন্ত্রণে সুপারিশ প্রণয়নে গঠিত কমিটি যে ১১১টি সুপারিশ করেছে, তাতে এ আইন বাস্তবায়নের পথ নির্দেশনা রয়েছে। এতে পুরো সড়ক ব্যবস্থাপনা সিসিটিভি ক্যামেরায় আওতায় আনার কথা বলা হয়েছে। যাতে কেউ আইন ভঙ্গ না করলে তার বিরুদ্ধে ব্যবস্থার নেওয়ার শঙ্কা না থাকে। আজ শনিবার জাতীয় প্রেসক্লাবে নিসচা’র ২৬তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উপলক্ষে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে তিনি এসব কথা বলেন। ইলিয়াস কাঞ্চন বলেন, নিসচা আন্দোলনের দীর্ঘদিনের দাবি ছিল সময়োপযোগী সড়ক পরিবহন আইনের। সেই দাবি আজ পূরণ হয়েছে। কিন্তু দুঃখের কথা, প্রয়োগের শুরুর দিন (১ নবেম্বর) থেকেই আইনটি হোঁচট খেয়েছে। এ আইন বাস্তবায়নে কোনো চাপের
আগামী তিনদিনে তাপমাত্রা আরো কমতে পারে

আগামী তিনদিনে তাপমাত্রা আরো কমতে পারে

নিজস্ব প্রতিবেদক : আগামী তিনদিনে রাতের তাপমাত্রা আরো কমতে পারে। গত ২৪ ঘণ্টায় তেঁতুলিয়ায় ১৪ ডিগ্রি সেলসিয়াস তাপমাত্রা রেকর্ড করা হয়। শনিবার সকালে আবহাওয়া অধিদপ্তর এক বিজ্ঞপ্তিতে এ কথা জানায়। এতে আজ সকাল ৯ টা থেকে পরবর্তী ২৪ ঘণ্টার পূর্বাভাসে বলা হয়, শেষরাত থেকে ভোর পর্যন্ত দেশের কোথাও কোথাও হালকা কুয়াশা পড়তে পারে।সারাদেশে রাতের তাপমাত্রা সামান্য হ্রাস পেতে পারে এবং দিনের তাপমাত্রা প্রায় অপরিবর্তিত থাকতে পারে।এছাড়া অস্থায়ীভাবে আংশিক মেঘলা আকাশসহ সারাদেশের আবহাওয়া শুষ্ক থাকতে পারে। পরবর্তী ৭২ ঘণ্টায় রাতের তাপমাত্রা ক্রমান্বয়ে হ্রাস পেতে পারে। আবহাওয়ার চিত্রের সংক্ষিপ্তাসারে অবস্থায় বলা হয়, উপমহাদেশীয় উচ্চচাপ বলয়ের বর্ধিতাংশ ভারতের বিহার এবং তৎসংলগ্ন এলাকা পর্যন্ত বিস্তৃত রয়েছে। মৌসুমের স্বাভাবিক লঘুচাপ দক্ষিণ বঙ্গোপসাগরে অবস্থান করছে।
গফরগাঁওয়ে এ কেমন ফসলের সাঙ্গে শত্রুতা!

গফরগাঁওয়ে এ কেমন ফসলের সাঙ্গে শত্রুতা!

গফরগাঁও (ময়মনসিংহ) প্রতিনিধি : ময়মনসিংহের গফরগাঁওয়ে অজ্ঞাত দুর্বৃত্তরা রাতের আঁধারে চাষিদের জমির ফস কেটে বিনষ্ট করেছে বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে। গতকাল গভীর রাতে উপজেলার পাগলা থানাধীন টাঙ্গাব ইউনিয়নের টাঙ্গাব গ্রামের ব্রহ্মপুত্র নদের চরে এই ঘটনা ঘটেছে। জমির মালিক মোহাম্মদ সেলিম পাগলা থানায় একটি অভিযোগ দায়ের করেছেন। স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, পাগলা থানাধীন টাঙ্গাব গ্রামের মৃত মাহমুদুল হাসান খসরুর ছেলে মোহাম্মদ সেলিমের টাঙ্গাব মৌজার ব্রহ্মপুত্র নদের চরে প্রায় ৬০ শতাংশ ফসলি জমিতে স্থানীয় হত দরিদ্র বর্গা চাষিরা মুলা, টমাটো, লাউ, মরিচসহ বিভিন্ন মৌসুমি জাতের শাক-সবজি চাষ করেন। গতকাল গভীর রাতে জমির ফসল কেটে ও উপড়ে ফেলে নষ্ট করে দেয় অজ্ঞাত দুর্বৃত্তারা। জমির মালিক মোহাম্মদ সেলিম বলেন, এই জমি চাষ করে এলাকার দরিদ্র চাষি পরিবারগুলো সারা বছর চলে। এই শাক-সবজি বিক্রি করেই সংসার ও ছেলে মেয়েদের পড়াশোনার খ
দুর্নীতির বিরুদ্ধে অভিযান অব্যাহত থাকবে : প্রধানমন্ত্রী

দুর্নীতির বিরুদ্ধে অভিযান অব্যাহত থাকবে : প্রধানমন্ত্রী

নিজস্ব প্রতিবেদক : প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন, কেউ অবৈধভাবে অর্থ উপার্জন করবে সেটা কোনোভাবেই মেনে নেয়া হবে না। টাকা বানানো একটা রোগ, অসুস্থতা। এ রোগে একবার আক্রান্ত হলে শুধু বানাতেই ইচ্ছে করে। জঙ্গিবাদ, সন্ত্রাস, মাদক ও দুর্নীতির বিরুদ্ধে অভিযান অব্যাহত রেখেছি। আর এটা অব্যাহত থাকবে। শনিবার দুপুরে রাজধানীর সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে ঢাকা মহানগর উত্তর ও দক্ষিণ আওয়ামী লীগের ত্রি-বার্ষিক সম্মেলনের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এ সব কথা বলেন। প্রধানমন্ত্রী বলেন, সন্ত্রাস-সহিংসতা বিএনপির পুরানো অভ্যাস। এদের হাত থেকে দেশের মানুষকে রক্ষা করে জনগণের জীবনমান উন্নয়ন করা আওয়ামী লীগ সরকারের লক্ষ্য। প্রধানমন্ত্রী বলেন, এতিমদের জন্য টাকা এসেছে সেই টাকাটা ওদের ভাগ্যে জোটেনি। খালেদা জিয়ার অ্যাকাউন্টে জমা হয়েছে। এতিমের টাকা আত্মসাৎ করার জন্য খালেদা জিয়ার নামে মামলা হয়েছে। সেই মামলায় তি
পথশিশুদের নিয়ে তানিশার উদ্যোগ

পথশিশুদের নিয়ে তানিশার উদ্যোগ

প্রাইম বিনোদন : প্রতিভাবান কণ্ঠশিল্পী তানিশা নিজের গানের পাশাপাশি একটি স্কুলে পথশিশুদের গান শেখানোর উদ্যোগ নিয়েছেন। সম্প্রতি কণ্ঠশিল্পী কাজী শুভর সঙ্গে তার একটি ডুয়েট অ্যালবাম প্রকাশ পেয়েছে। এর বাইরে নতুন কিছু গানের কাজ করছেন। তানিশা বলেন, ‘আমি খুবই ক্ষুদ্র একজন শিল্পী। তবুও এর ভেতরে নিজের মতো করে সামাজিক যেকোনো কাজে কন্ট্রিবিউট করতে চাই। সেই উদ্দেশ্যেই একঝাঁক পথশিশুর সঙ্গে গানে গানে কিছু সময় কাটাবো। এটাই আমার জীবনের অন্যতম অভিজ্ঞতা হবে। তাই মিরপুরের কালশীর একটি স্কুল কর্তৃপক্ষ এই ব্যাপারে অফার করায় আমি সুযোগটা ছাড়তে চাইনি।’ উল্লেখ্য, শিগগিরই দুটি নতুন মিউজিক ভিডিও নিয়ে তানিশা আসছেন। এছাড়া তার ব্যক্তিগত ইউটিউব চ্যানেলেও নিয়মিত গান প্রকাশের উদ্যোগ নিয়েছেন স্টেজ শোর পাশাপাশি।
শিক্ষার মান ও শিক্ষকের দায়

শিক্ষার মান ও শিক্ষকের দায়

ড. মুহম্মদ মাহবুব আলী : প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা দ্বিতীয় মেয়াদে অর্থাৎ ২০০৯ সালে ক্ষমতায় আসার পর থেকে বিভিন্ন উপায়ে প্রাথমিক স্তরে শিক্ষকের মান-মর্যাদা বৃদ্ধিতে সচেষ্ট রয়েছেন। শিক্ষক পরিবারের একজন সদস্য হিসেবে এর জন্য ধন্যবাদ জানাই। কিন্তু সম্প্রতি পত্রিকায় প্রকাশিত সংবাদে চক্ষু চড়ক গাছ- সদ্যসমাপ্ত হওয়া প্রাইমারী স্কুলের খাতা কাটছে সতীর্থ শিক্ষকের প্রাইমারী স্কুলের সহকর্মীর ছেলে, যে কিনা মোটে প্রাইমারী পরীক্ষা দিয়েছে এবং দুধের শিশু। কি বিচিত্র দেশ সেলুকাস! এ ধরনের অপতৎপরতা ইউএনও এবং পুলিশের অভিযোগে ২৫০টি খাতা জব্দ করা হয়েছে। কিন্তু যা সংবাদে আসে তার চেয়েও বেশিগুণে হয়ে থাকে। মনে পড়ে গেল, আমি যখন চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্র, পাবলিক ফাইন্যান্স টিউটোরিয়াল পরীক্ষায় কম নম্বর পেলাম। স্যার যখন বললেন যে, যারা রিভিউ করতে চায়, তারা জমা দাও। আমিও দিতে গেলাম। কারণ জানতে চাইলে বললাম, আপনি খাতা ঠি