মঙ্গলবার, এপ্রিল ২০
Shadow

Month: জানুয়ারি ২০২১

দিয়াবাড়ী থেকে মিরপুর বসানো হচ্ছে রেলট্র্যাক

দিয়াবাড়ী থেকে মিরপুর বসানো হচ্ছে রেলট্র্যাক

জাতীয়
প্রাইম ডেস্ক : রাজধানীর মেট্রোরেল লাইন-৬-এর কাজ দ্রুতগতিতে এগিয়ে চলেছে। দিয়াবাড়ী থেকে মিরপুর অংশে বসানো হচ্ছে রেলট্র্যাক, যার ওপর দিয়েই চলবে ট্রেন। এ অংশে টানা হচ্ছে বৈদ্যুতিক লাইন। এগিয়ে চলেছে স্টেশন নির্মাণের কাজও। ঋণ পরিশোধসহ পরিচালন ব্যয় মেটাতে দিনে ২ কোটি ৩৩ লাখ টাকা আয় করার লক্ষ্যমাত্রা নির্ধারণ করতে চাইছে মেট্রোরেল কর্তৃপক্ষ। তাদের হিসাব অনুযায়ী, প্রতি মাসে পরিচালন ব্যয় হবে ৬৯ কোটি ৯১ লাখ ৭২ হাজার ২২৯ টাকা। দৈনিক ব্যয় হবে ২ কোটি ৩৩ লাখ ৫ হাজার ৭৪১ টাকা। এর মধ্যে জাইকার ঋণ বাবদ ১ কোটি ৫৩ লাখ ৮৮ হাজার ৪৮৫ ও সরকারের ব্যয় জোগাতে লাগবে ৪৯ লাখ ৯১ হাজার ১৮৫ টাকা। অর্থাৎ ২ কোটি টাকার বেশি যাবে শুধু জাইকার ঋণ ও সরকারের ব্যয় পরিশোধে। এই পুরো টাকা টিকেট বিক্রির মাধ্যমে আয় করতে চাইছে মেট্রোরেল কর্তৃপক্ষ। মেট্রোরেলের ভাড়া নির্ধারণ কমিটির প্রাক্কলন অনুযায়ী, দিনে ৪ লাখ ৮৩ হাজার যাত্রী মেট্রোরেল ...
পদ্মা সেতুর রেললাইন প্রকল্পে জটিলতার অবসান

পদ্মা সেতুর রেললাইন প্রকল্পে জটিলতার অবসান

জাতীয়
প্রাইম ডেস্ক : পদ্মা সেতুর রেললাইন প্রকল্পে ত্রুটি ধরা পড়ার পর যে জটিলতা সৃষ্টি হয়েছিল অবশেষে তার অবসান হয়েছে। কোনো খুঁটি না ভেঙে শুধু পাইল বাড়িয়ে দিয়ে ‘রি-ডিজাইন’ করা হয়েছে। এতে কোনো খুঁটি ভাঙা হচ্ছে না। তবে জাজিরা প্রান্তে বাড়ানো হচ্ছে একটি পাইল যা কাঠামো লোডকে ছড়িয়ে দেয়। বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন পদ্মা সেতু রেল প্রকল্পের (পিবিআরএলপি) পরিচালক প্রকৌশলী গোলাম ফখরুদ্দিন আহমেদ চৌধুরী। গত সেপ্টেম্বরে পদ্মা সেতুর দুই পাড়ে আনুভূমিক (হরাইজন্টাল) ও উলম্ব (ভার্টিক্যাল) দুই দিকেই রেলওয়ের কাজে ত্রুটি ধরা পড়ে। আগের ঐ নকশায় দেখা যায়, দেশের সড়কপথের হেডরুমের ক্ষেত্রে আনুভূমিকে ১৫ মিটার ও উলম্বে ৫ দশমিক ৭ মিটার পরিমাপকে স্ট্যান্ডার্ড মানা হলেও পদ্মা সেতুর রেল প্রকল্পে তা মানা হয়নি। এ অবস্থায় সেতুতে ট্রাক, কাভার্ড ভ্যান ও দ্বিতল বাস প্রবেশ করতে পারবে না—এমন আশঙ্কা থেকে সেতু কর্তৃপক্ষ রেল প্রকল্পের কাজে আপত্...
ভূমিহীনদের গৃহ প্রদান মানবাধিকার প্রতিষ্ঠায় মাইলফলক

ভূমিহীনদের গৃহ প্রদান মানবাধিকার প্রতিষ্ঠায় মাইলফলক

জাতীয়
প্রাইম ডেস্ক : স্পিকার ড. শিরীন শারমিন চৌধুরী বলেছেন, গৃহহীন ভূমিহীনদের গৃহ প্রদান মানবাধিকার প্রতিষ্ঠায় অনন্য মাইলফলক। প্রধানমন্ত্রী বঙ্গবন্ধুকন্যা শেখ হাসিনা বঙ্গবন্ধুর দর্শন বাস্তবায়নে বিভিন্ন কার্যক্রম গ্রহণ করেছেন। বাংলাদেশকে বঙ্গবন্ধুর সোনার বাংলা হিসেবে প্রতিষ্ঠার লক্ষ্য নিয়ে তিনি এগিয়ে যাচ্ছেন। গতকাল শনিবান জাতীয় মানবাধিকার কমিশন (এনএইচআরসি) আয়োজিত জাতির পিতার জন্মশতবর্ষ উদযাপনে বঙ্গবন্ধু ও মানবাধিকার শীর্ষক রচনা প্রতিযোগিতার ভার্চুয়াল পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠানে স্পিকার এসব কথা বলেন। স্পিকার বলেন, অতি সম্প্রতি আশ্রয়ণ প্রকল্পের মাধ্যমে নয় লক্ষ গৃহহীন-ভূমিহীন মানুষকে ঘর প্রদানের লক্ষ্য নির্ধারণ করা হয়েছে এবং ইতোমধ্যে সত্তর হাজার গৃহহীন-ভূমিহীন মানুষকে ঘর প্রদান করা হয়েছে যা মানবাধিকার প্রতিষ্ঠায় অনন্য মাইলফলক। শিরীন শারমিন চৌধুরী বলেন, বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান ছিলেন নিপীড়িত বঞ্চ...
দৃশ্যমান হচ্ছে শাহজালালের তৃতীয় টার্মিনাল

দৃশ্যমান হচ্ছে শাহজালালের তৃতীয় টার্মিনাল

জাতীয়
প্রাইম ডেস্ক : করোনা ধাক্কা কাটিয়ে হযরত শাহজালাল বিমানবন্দরের তৃতীয় টার্মিনালের নির্মাণকাজ এগিয়ে চলেছে। এরই মধ্যে টার্মিনালটির ১০ শতাংশ কাজ শেষ হয়েছে। এর মাধ্যমে দৃশ্যমান হওয়ার পথে রয়েছে দেশের বৃহত্তম বিমানবন্দরটির তৃতীয় টার্মিনাল। বেসরকারি বিমান চলাচল কর্তৃপক্ষ (বেবিচক) সূত্র জানায়, পুরো তৃতীয় টার্মিনালের নির্মাণ কাজ শেষ হবে ২০২৩ সালের জুলাই থেকে সেপ্টেম্বরের মধ্যে। এই কাজ শেষে টার্মিনালটি চালু করা গেলে হযরত শাহজালাল (রহ.) আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে যাত্রীসেবার মান আরও উন্নত হবে। এতে করে বছরে ২০ লাখ যাত্রীকে সেবা দেওয়া সম্ভব হবে। তাতে করে বাংলাদেশের এভিয়েশন খাতে যুক্ত হবে নতুন এক অধ্যায়। তৃতীয় টার্মিনাল নির্মাণে সংশ্লিষ্টরা জানিয়েছেন, করোনা সংক্রমণ এখনো না থামেলেও পালাক্রমে ২৪ ঘণ্টাই চলছে এই টার্মিনালের নির্মাণ কাজ। মিতসুবিশি করপোরেশন, ফুজিতা করপোরেশন ও স্যামসাং যৌথভাবে এই কাজটি করছে। প্...
মালিতে শান্তিরক্ষা মিশনে বাংলাদেশ সেনাবাহিনীর সাফল্য

মালিতে শান্তিরক্ষা মিশনে বাংলাদেশ সেনাবাহিনীর সাফল্য

জাতীয়
প্রাইম ডেস্ক : পশ্চিম আফ্রিকার দেশ মালিতে বিদ্রোহীদের বিরুদ্ধে বড় ধরনের সাফল্য পেয়েছে সেখানে শান্তিরক্ষা মিশনে দায়িত্ব পালনরত বাংলাদেশী সেনাবাহিনীর একটি দল। সেখানে গত বুধবার আভিযানিক কার্যক্রম পরিচালনার সময় সশস্ত্র বিদ্রোহীরা বাংলাদেশী শান্তিরক্ষীদের ওপর ওঊউ বিস্ফোরণ ও গুলিবর্ষণের মাধ্যমে আক্রমণ পরিচালনা করে। ওঊউ বিস্ফোরণে বাংলাদেশী শান্তিরক্ষীদের একটি এলএভি (সাজোয়া বহর) আংশিক ক্ষতিগ্রস্ত হয় এবং ঘটনাস্থলে ৩ জন বাংলাদেশী শান্তিরক্ষী আহত হন। আহত শান্তিরক্ষীরা হলেন নং ৪০৪২৪৩৫ ল্যান্স করপোরাল আলীমুজ্জমান (৪-ই বেঙ্গল), নং ৪৫১৪৩৫৫ সৈনিক মো: মোস্তাফিজুর রহমান (৩৪ বীর) এবং নং ৪৫১০৪০৪ সৈনিক সাইদুল আলম (৩৪ বীর)। বাংলাদেশী দুঃসাহসী শান্তিরক্ষীরা পাল্টা আক্রমণ করে সন্ত্রাসীদের প্রতিহত করে এবং পালিয়ে যেতে বাধ্য করে। এ ঘটনায় আহত শান্তিরক্ষীদের হেলিকপ্টারে মপতি এলাকার ইউএন-এর লেভেল-২ হাসপাতালে স্থানান্...
ক্যাডেট কলেজের মতো ৮ শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান করবে পুলিশ

ক্যাডেট কলেজের মতো ৮ শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান করবে পুলিশ

জাতীয়
প্রাইম ডেস্ক : দেশের ৮টি বিভাগীয় শহরে ক্যাডেট কলেজের আদলে ৮টি শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান স্থাপনের উদ্যোগ নিয়েছে বাংলাদেশ পুলিশ। সেখানে অগ্রাধিকার ভিত্তিতে পুলিশ বাহিনীর সদস্যদের সন্তানরা লেখাপড়ার সুযোগ পাবে। এই লক্ষ্য বাস্তবায়নে ইতিমধ্যে একটি প্রকল্প প্রস্তাব তৈরির কাজ হাতে নিয়েছে পুলিশ সদর দপ্তর। পুলিশ সদর দপ্তরের একাধিক কর্মকর্তা দেশ রূপান্তরকে বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন। তারা বলেছেন, পুলিশ সদস্যদের বদলিজনিত কারণে যাতে তাদের সন্তানদের লেখাপড়ায় বিঘ্ন না ঘটে সে লক্ষ্যে এই প্রকল্প নেওয়া হয়েছে। এ বিষয়ে জানতে চাইলে ঢাকা মহানগর পুলিশ কমিশনার মোহা. শফিকুল ইসলাম দেশ রূপান্তরকে বলেন, ‘আমরা যারা পুলিশে চাকরি করি তাদের জন্য জটিল সমস্যা হচ্ছে সন্তানদের লেখাপড়া। যেকোনো সময় আমাদের বদলি হতে পারে। তাই তাদের লেখাপড়া যাতে কোনো ক্ষতিগ্রস্ত না হয় তার জন্য আইজিপি ড. বেনজীর আহমেদ ক্যাডেট কলেজের আদলে বিভাগীয় শহরগুলোতে ৮টি ...
এবার বাংলাদেশের কাছে টিকা চায় হাঙ্গেরি ও বলিভিয়া

এবার বাংলাদেশের কাছে টিকা চায় হাঙ্গেরি ও বলিভিয়া

জাতীয়
প্রাইম ডেস্ক : বাংলাদেশের কাছ থেকে ইউরোপের দেশ হাঙ্গেরি ৫ হাজার ডোজ করোনার ভ্যাকসিন চেয়েছে। এ ছাড়া বলিভিয়ার পক্ষ থেকেও বাংলাদেশের কাছে ভ্যাকসিন সহায়তা চাওয়া হয়েছে বলে সংসদে জানিয়েছেন পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী শাহরিয়ার আলম। রোববার (৩১ জানুয়ারি) জাতীয় সংসদে রাষ্ট্রপতির ভাষণের ওপর আনা ধন্যবাদ প্রস্তাবের আলোচনায় অংশ নিয়ে এ তথ্য জানান শাহরিয়ার আলম। তিনি বলেছেন, ইউরোপের দেশ হাঙ্গেরি ৫ হাজার ডোজ করোনার ভ্যাকসিন চেয়েছে বাংলাদেশের কাছে। প্রধানমন্ত্রীর অনুমোদনে বাংলাদেশ থেকে সেটি পাঠানো হবে। এ ছাড়া বলিভিয়ার পক্ষ থেকেও বাংলাদেশের কাছে ভ্যাকসিন সহায়তা চাওয়া হয়েছে। এ বিষয়ে প্রধানমন্ত্রী ও স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় সিদ্ধান্ত নেবে। তিনি আরো বলেন, পৃথিবীর ৩৫টি দেশ এখন পর্যন্ত ভ্যাকসিন কেনার চুক্তি করেছে। আর ২২টি দেশ ভ্যাকসিন কিনেছে, যার মধ্যে বাংলাদেশ অন্যতম। টিকা নিয়ে গুজব রটনাকারীদের বিরুদ্ধে...
১৫ দিনে ভাড়াটিয়া নিবন্ধন কার্যক্রম শেষ করার নির্দেশ

১৫ দিনে ভাড়াটিয়া নিবন্ধন কার্যক্রম শেষ করার নির্দেশ

জাতীয়
নিজস্ব প্রতিবেদক : রাজধানীতে আগামী ১৫ দিনে মধ্যে সব বাসার ভাড়া‌টিয়ার তথ্য হালনাগাদ ও নিবন্ধন কার্যক্রম শেষ করার নির্দেশ দিয়েছে পু‌লিশ। আজ রবিবার ডিএমপি মি‌ডিয়া সেন্টারে এক সংবাদ সম্মেলনে এ তথ‌্য জানান ডি‌বি‌র অ‌তি‌রিক্ত পু‌লিশ ক‌মিশনার হা‌ফিজ আক্তার। এসময় তি‌নি জানান, অপরাধ দম‌নে পু‌লিশের বি‌ভিন্ন কৌশলের অংশ হিসেবে আবারও ভাড়া‌টিয়া হালনাহাদ শুরু হচ্ছে। এজন‌্য প্রয়োজনীয় ব‌্যবস্থা নিতে ৫০টি থানায় নির্দেশনা দেওয়া হয়েছে। রাজধানীর বি‌ভিন্ন স্থান থেকে অপহরণ চক্রের ৯ সদস‌্যকে আটক করে গো‌য়েন্দা পু‌লিশ। অপহরণ চক্রটি অপহৃত‌দের বি‌ভিন্ন ভাড়া বাসায় আটকে রাখতো। এ কা‌র‌ণে আবারও ভাড়া‌টিয়া নিবন্ধন শুরু করছে পু‌লিশ।...
অষ্টম পেরিয়ে নবম বর্ষে পদার্পণ করলো স্বদেশ প্রতিদিন

অষ্টম পেরিয়ে নবম বর্ষে পদার্পণ করলো স্বদেশ প্রতিদিন

জাতীয়
নিজস্ব প্রতিবেদক : অষ্টম বর্ষ পেরিয়ে নবম বর্ষে পদার্পণ করলো জাতীয় দৈনিক স্বদেশ প্রতিদিন। সংবাদপত্র, পত্রিকা বা খবরের কাগজ—যে নামেই সম্বোধন করি না কেন, এর মূল কাজ পাঠকের কাছে সংবাদ পৌঁছে দেওয়া। কিন্তু সেই সংবাদপত্রই যে সংবাদ প্রদানের বাইরেও হয়ে উঠতে পারে আরও বিশেষ কিছু, বস্তুনিষ্ঠ সংবাদের ঠিকানা, কাজ করতে পারে ভাষা বা বিজ্ঞানচর্চায়, অনন্য উপায়ে সম্মান জানাতে পারে প্রিয় শিক্ষক বা লেখককে, স্বীকৃতি দিতে পারে ক্রীড়া বা বিনোদনজগতের সেরা কাজ বা মানুষটিকে, দেশের নানা প্রান্ত থেকে অদম্য মেধাবীদের খুঁজে এনে তাদের পাশে দাঁড়াতে পারে, সে কথাটা কজন ভেবেছিল! প্রতিনিয়ত এমন দারুণ সব কাজ করে গত ৮ বছর ধরে বাংলাদেশের মানুষের মনে অনন্য এক জায়গা করে নিয়েছে দৈনিক স্বদেশ প্রতিদিন। এই করোনাকালেও নিয়মিত প্রকাশ হয়েছে দৈনিক স্বদেশ প্রতিদিন। কঠিন এই সময়ে জীবনের ঝুঁকি নিয়েও কাজ করে চলেছেন স্বদেশ প্রতিদিনের এক...
এবার ইন্দিরা গান্ধীর চরিত্রে কঙ্গনা

এবার ইন্দিরা গান্ধীর চরিত্রে কঙ্গনা

বিনোদন
প্রাইম বিনোদন : ​এবার ইন্দিরা গান্ধীর চরিত্রে অভিনয় করবেন কঙ্গনা রানাওয়াত। জয়ললিতার বায়োপিকের পর ভারতের প্রয়াত প্রধানমন্ত্রী ইন্দিরা গান্ধীর চরিত্রে অভিনয় করতে দেখা যাবে কঙ্গনাকে। নিজের সোশ্যাল হ্যান্ডেলে ইতিমধ্যেই বিষয়টি নিয়ে ইঙ্গিত দেন কঙ্গনা। যেখানে তিনি জানান, ইন্দিরা গান্ধীর কোনো বায়োপিক তৈরি করা হচ্ছে না। এটি একটি রাজনৈতিক ছবি। যেখানে তিনি ইন্দিরা গান্ধীর চরিত্রে অভিনয় করবেন তিনি। কঙ্গনা টুইট করে ইতিমধ্যেই ইন্দিরা গান্ধীকে নিয়ে তার পরবর্তী সিনেমার লুক প্রকাশ করেছেন। ইন্দিরা গান্ধীকে নিয়ে যে ছবি তৈরি করা হচ্ছে, তার চিত্রনাট্যের কাজ প্রায় শেষ হয়ে গেছে। এই ছবিতে কঙ্গনার পাশপাশি আরও বেশ কয়েকজন অভিনেতা রয়েছেন। ইন্দিরা গান্ধীকে নিয়ে যে রাজনৈতিক ছবি তৈরি করা হচ্ছে, তা নিয়ে তিনি উচ্ছ্বসিত বলে জানান কঙ্গনা।...